ব্রেকিং

x

আজও নদীতে ভেসে উঠেছে ২ মরদেহ

মঙ্গলবার, ২৮ ডিসেম্বর ২০২১ | ৭:৫১ অপরাহ্ণ |

আজও নদীতে ভেসে উঠেছে ২ মরদেহ
ফাইল ছবি

ঝালকাঠির সুগন্ধা নদীতে এমভি অভিযান-১০ লঞ্চে অগ্নিকাণ্ডের ঘটনায় সুগন্ধা ও বিষখালি নদীতে একের পর এক মরহেদ ভেসে উঠতে শুরু করেছে। আজ মঙ্গলবার বিকেল পর্যন্ত এক শিশুসহ দুজনের মরদেহ উদ্ধার করা হয়েছে। আজ সকালে ঝালকাঠি লঞ্চঘাট-সংলগ্ন সুগন্ধা নদীর দক্ষিণ তীর থেকে একজনের লাশ উদ্ধার করা হয়েছে। তাঁর বয়স ৩৫ বছর হতে পারে বলে জানিয়েছেন ফায়ার সার্ভিসকর্মীরা। মরদেহের শরীরে আগুনে পোড়ার চিহ্ন রয়েছে।

ঝালকাঠি সদর থানার এসআই খোকন হাওলাদার জানান, ওই ব্যক্তির মুখমণ্ডল পোড়া। সকালে খবর পেয়ে ফায়ার সার্ভিস স্থানীয় ট্রলার দিয়ে মরদেহটি উদ্ধার করে। ঝালকাঠি সদর হাসপাতাল মর্গে ময়নাতদন্তের জন্য নেওয়া হয়েছে।

এদিকে ঝালকাঠির সুগন্ধা নদীতে বরগুনাগামী লঞ্চ এমভি অভিযান-১০ অগ্নিকাণ্ডে দগ্ধ আরও একজনের লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। মঙ্গলবার দুপুরে বিষখালী নদীর চর ভাটারাকান্দা থেকে ওই লাশ উদ্ধার করা হয়েছে। কোস্টগার্ডের এডি সুমন খান জানান, উদ্ধার করা লাশটি ১৩-১৪ বছরের একজন কিশোরের। তার মুখে কিছুটা পোড়া দাগ রয়েছে। দুপুর একটার দিকে নদী তীরের কাছে লাশটি ভেসে উঠলে স্থানীয় কয়েকজন দেখে কোস্টগার্ডকে জানায়।

বিষখালী সুগন্ধা ও ধানসিঁড়ি নদীর মোহনায় কোস্টগার্ড ও ফায়ার সার্ভিসের কর্মীরা পঞ্চম দিনেও লাশ উদ্ধারে তল্লাশি চালাচ্ছে। এর আগে সোমবার বাবুর্চি শাকিল মোল্লার লাশ উদ্ধার করা হয়েছিল। তাঁর বাড়ি নারায়ণগঞ্জের ফতুল্লায়। তাঁর মরদেহ মঙ্গলবার সকালে পরিবারের কাছে হস্তান্তর করা হয়েছে।

এদিকে, সুগন্ধায় যাত্রীবাহী লঞ্চে অগ্নিকাণ্ডে আজ পঞ্চম দিনের মতো উদ্ধার অভিযান চলছে। অগ্নিকাণ্ডের সময় প্রাণ বাঁচাতে নদীতে ঝাঁপিয়ে পড়াদের খুঁজতে ফায়ার সার্ভিস ও সিভিল ডিফেন্স কর্মীরা সকাল থেকে সুগন্ধা ও বিষখালী নদীর বিভিন্ন পয়েন্টে সন্ধান চালাচ্ছে।

যাত্রীবাহী লঞ্চে অগ্নিকাণ্ডের ঘটনায় আজ ঝালকাঠি থানায় একটি মামলা দায়ের করা হয়েছে। এতে এমভি অভিযান-১০ এর মালিক হামজালাল শেখ ও লঞ্চের স্টাফসহ ৮ জনের নাম উল্লেখ এবং অজ্ঞাত কয়েকজনকে আসামি করা হয়েছে।

স্বজনহারা মনির হোসেন বাদী হয়ে মামলাটি দায়ের করেন। এছাড়া, আগুনের ঘটনায় গঠিত তদন্ত টিমের তদন্তকাজ অব্যাহত রয়েছে। পুলিশ এ ঘটনায় ৪১ জনের নিখোঁজ রয়েছে বলে স্বজনদের কাছ থেকে তথ্য সংগ্রহ করেছেন। ঘটনার দিন নদী থেকে ৯ জন, সোমবার ১ জন এবং মঙ্গলবার ২ জনের লাশ উদ্ধার হয়েছে।

Development by: webnewsdesign.com