ব্রেকিং

x

‘টেস্টের অবসর’ নিয়ে মুখ বন্ধই রাখলেন মাহমুদউল্লাহ

সোমবার, ০২ আগস্ট ২০২১ | ৬:১১ অপরাহ্ণ |

‘টেস্টের অবসর’ নিয়ে মুখ বন্ধই রাখলেন মাহমুদউল্লাহ
ছবি: সংগৃহীত

জিম্বাবুয়ে সফরে হঠাৎই হইচই ফেলে দিলেন মাহমুদউল্লাহ। হারারেতে একমাত্র টেস্টে দেড় শ রানের ইনিংস খেলে দলকে বড় রান তুলতে ভূমিকা রাখলেন। কিন্তু টেস্ট শেষ হতে না হতেই তিনি বিদায় জানিয়ে দেন সাদা পোশাকের ক্রিকেটকে। পুরো ব্যাপারটিই ছিল সবার জন্য বড় ধাক্কা। এ নিয়ে একদমই মুখ খোলেননি তিনি। মুখ খুললেন না আজও।

অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে টি-টোয়েন্টি সিরিজ কাল থেকে। মাহমুদউল্লাহ বাংলাদেশের টি-টোয়েন্টি অধিনায়ক। আজ সংবাদমাধ্যম তাঁকে বাগে পেয়েছিল, টেস্ট থেকে অবসর নিয়ে যদি মাহমুদউল্লাহর মুখ থেকে কিছু বের করা যায়। কিন্তু সংবাদকর্মীদের হতাশই করেছেন। টেস্টের অবসর নিয়ে মুখ বন্ধই রাখলেন তিনি।

অনলাইন সংবাদ সম্মেলনে অধিনায়ক মাহমুদউল্লাহকে করা প্রথম প্রশ্নটিই ছিল তাঁর টেস্ট অবসর নিয়ে। তবে এ ব্যাপারে কোনো পরিষ্কার উত্তর দেননি মাহমুদউল্লাহ। আপাতত অস্ট্রেলিয়া সিরিজেই নাকি তাঁর সব মনোযোগ, ‘একটা জিনিস পরিষ্কার করে বলতে চাই। শুধু এই সিরিজ নিয়েই আমি এখন ভাবছি। এ বিষয়ে আপনাদের শিগগিরই জানাতে পারব।’

বাংলাদেশ দল অস্ট্রেলিয়া সিরিজের আগে জিম্বাবুয়েতে টি-টোয়েন্টি সিরিজ জিতে এসেছে। ঘরের মাঠে প্রতিপক্ষ হিসেবে এখন অস্ট্রেলিয়াকে পাচ্ছে বাংলাদেশ। কন্ডিশন চেনা হলেও যে অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে টি-টোয়েন্টি সিরিজ জেতা কঠিন হবে, সেটি মাহমুদউল্লাহরও জানা। তবে অধিনায়কের আশা ছোট সংস্করণের ক্রিকেটের অনিশ্চয়তায়, ‘আমি ব্যক্তিগতভাবে বিশ্বাস করি, টি-টোয়েন্টি সংস্করণটাই এমন। আপনি যত ওপরের র‍্যাংকিংয়ের দলই হোক না কেন নির্দিষ্ট দিনে যদি ভালো খেলতে পারেন, তাহলে যেকোনো দলকেই হারাতে পারবেন।’

জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে শেষ টেস্টে ১৫০ রান করেছিলেন মাহমুদউল্লাহ অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে এবারই প্রথম টি-টোয়েন্টি দ্বিপক্ষীয় সিরিজ খেলছে বাংলাদেশ। কিন্তু তামিম ইকবাল, মুশফিকুর রহিম ও লিটন দাসের মতো নিয়মিত ক্রিকেটারদের পাচ্ছে না স্বাগতিকেরা। অস্ট্রেলিয়াও তাদের মূল দলের ব্যাটসম্যানদের বিশ্রাম দিয়েছে। বাংলাদেশ সফরের অস্ট্রেলিয়া দলে যেমন নেই স্টিভ স্মিথ, ডেভিড ওয়ার্নার, মারনেস লাবুশেনদের মতো তারকারা।

হাতে যে রসদ আছে, তা দিয়েই অস্ট্রেলিয়াকে হারাতে চান মাহমুদউল্লাহ। বাংলাদেশ যে ‘ঘরের মাঠে ভালো দল’—এই পরিচয়ই ধরে রাখতে চান তিনি, ‘ওদের গুরুত্বপূর্ণ কিছু খেলোয়াড় আসেনি, একই সঙ্গে আমরাও আমাদের কিছু গুরুত্বপূর্ণ খেলোয়াড়কে পাচ্ছি না। লিটন, তামিম, মুশফিককে মিস করতেছি। এটা আমাদের দলের ও ক্রিকেটারদের জন্য বড় সুযোগ নিজেদের অবস্থান দেখানো যে আমরা ঘরের মাঠে ভালো একটা দল।’

মাহমুদউল্লাহ শিগগিরই জানাবেন টেস্টের অবসর নিয়ে অস্ট্রেলিয়া সিরিজটি বাংলাদেশের জন্য বড় সুযোগও। বড় দলের বিপক্ষে পাঁচ ম্যাচের টি-টোয়েন্টি সিরিজ সচরাচর খেলার সুযোগও হয় না বাংলাদেশের। মাহমুদউল্লাহর দল সেই সুযোগ নিশ্চয়ই নিতে চাইবেন, ‘সেরা সুযোগ কি না, সেটা বলা এ মুহূর্তে কঠিন। তারা টি-টোয়েন্টিতে ভালো দল, ভালো ক্রিকেট খেলেই তাদের হারাতে হবে। সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ ব্যাপার হলো আমরা আমাদের দক্ষতা পরিস্থিতি অনুসারে কতটা প্রয়োগ করতে পারছি, সেটির ওপর অনেক কিছু নির্ভর করে। আমার মনে হয়, ভালো একটা সিরিজ হবে।’

Development by: webnewsdesign.com