ব্রেকিং

x

বিনিয়োগে ঝুঁকি আছে, কমানোর ব্যবস্থাও রয়েছে

রবিবার, ২০ নভেম্বর ২০২২ | ৫:২৫ অপরাহ্ণ |

বিনিয়োগে ঝুঁকি আছে, কমানোর ব্যবস্থাও রয়েছে
সংগৃহীত ছবি

ঝুঁকি না নিলে মুনাফা হয় না। তবে ঝুঁকি কোথা থেকে আসতে পারে, তা মাথায় রাখতে হবে। ঝুঁকি কমানোর পদ্ধতি জানতে ও বুঝতে হবে। এমন বিনিয়োগ মাধ্যম খুঁজতে হবে, যেখানে ভালো মুনাফা পাওয়া যাবে।

নোয়াখালী জেলা শহরে শনিবার বিনিয়োগকারী সম্মেলনে প্রধান অতিথি হিসেবে এসব কথা বলেন বাংলাদেশ বিশ্ববিদ্যালয় মঞ্জুরি কমিশনের সাবেক চেয়ারম্যান ও ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ইমেরিটাস অধ্যাপক ও প্রাক্তন উপাচার্য অধ্যাপক ড. এ কে আজাদ চৌধুরী। শেয়ারবাজার নিয়ন্ত্রক সংস্থা বিএসইসি এবং বিনিয়োগ শিক্ষা প্রদানে গঠিত প্রতিষ্ঠান বিএএসএমের যৌথ উদ্যোগে দেশব্যাপী বিনিয়োগ শিক্ষা কার্যক্রমের অংশ হিসেবে জেলা পর্যায়ের প্রথম সম্মেলন হিসেবে নোয়াখালীতে ‘বিনিয়োগ শিক্ষা সম্মেলন- ২০২২’-এর আয়োজন করা হয়। নোয়াখালী জেলার মাইজদীর দত্তেরহাটে অবস্থিত নোয়া কনভেনশন সেন্টার অ্যান্ড হোটেলে সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়।

সম্মেলনে বিএসইসির চেয়ারম্যান অধ্যাপক শিবলী রুবাইয়াত-উল-ইসলাম বলেন, বাংলাদেশের অগ্রগতিকে আরও এগিয়ে নিতে অনেক বিনিয়োগ দরকার। এর সবটাই শুধু বাংলাদেশ থেকে পাওয়া সম্ভব নয়। বিএসইসির কমিশনার শেখ শামসুদ্দিন আহমেদ বলেন, শেয়ারবাজার পরিচালনা ও বিনিয়োগকারীদের পুঁজির নিশ্চয়তা দেওয়ার জন্য শেয়ারবাজারে যত ধরনের প্রতিষ্ঠান থাকা দরকার, তার সবই বাংলাদেশে আছে।

বিএসইসির নির্বাহী পরিচালক রেজাউল করিম বলেন, সব ধরনের বিনিয়োগেই ঝুঁকি আছে। শেয়ারবাজারে বিনিয়োগও ঝুঁকিপূর্ণ। এ কথা বিবেচনা রেখে বিনিয়োগ করতে হবে। চৌকস বিনিয়োগকারী তাঁর বিনিয়োগ থেকে ঝুঁকি কমানোর কৌশল বের করে নেন। মুনাফা নিশ্চিত করতে জেনেবুঝে বিনিয়োগ করেন।

বিনিয়োগের ক্ষেত্রে ঝুঁকি কমাতে ধীরে ধীরে কেনার পরামর্শ দেন ডিএসইর ব্রোকারদের সংগঠন ডিবিএর সভাপতি রিচার্ড ডি রোজারিও। শেয়ারবাজারে বিনিয়োগে যাদের জ্ঞান নেই- অভিজ্ঞ ও পেশাদারদের দ্বারা পরিচালিত মিউচুয়াল ফান্ডে বিনিয়োগ করারও পরামর্শ দেন তিনি। ডিএসইর পরিচালক শাকিল রিজভী বলেন, বিনিয়োগ করতে হয় শেয়ারবাজারের খারাপ সময়ে, অর্থাৎ যখন শেয়ারের দর কমতে থাকে। বিক্রি করতে হয় ভালো সময়ে, অর্থাৎ যখন দর বাড়তে থাকে। বিএসইসির নির্বাহী পরিচালক সাইফুর রহমান বলেন, বিশেষ পরিস্থিতিতে দরপতন ঠেকাতে সব শেয়ারের দরে ফ্লোর প্রাইস আরোপ করা হয়েছে। এখনই তুলে নেওয়ার পরিকল্পনা কমিশনের নেই।

অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথির বক্তব্য দেন নোয়াখালীর জেলা প্রশাসক দেওয়ান মাহবুবুর রহমান। উপস্থিত ছিলেন নোয়াখালীর পুলিশ সুপার মো. শহীদুল ইসলাম, নোয়াখালী চেম্বারের পরিচালক বীর মুক্তিযোদ্ধা তপন চন্দ্র মজুমদার প্রমুখ।

Development by: webnewsdesign.com